আগামীকাল সোমবার পূর্ণ সূর্যগ্রহণ, গ্রহণের সময় ভুলেও এই ৫টি কাজ করবেন না

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কোটি কোটি মানুষ অপেক্ষা করছেন ২১ আগস্টের জন্যে। এ দিন দেখা মিলবে এক অপরূপ মহাজাগতিক দৃশ্যের। ১৯১৮ সালের পর এই প্রথম যুক্তরাষ্ট্রের পূর্ব উপকূল থেকে পশ্চিম উপকূল পর্যন্ত বিস্তৃত হবে পূর্ণ সূর্যগ্রহণ।

পশ্চিম ইউরোপ, আফ্রিকার কয়েকটি এলাকা এবং এশিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চল থেকেও আংশিক সূর্যগ্রহণের দেখা মিলবে। তবে বাংলাদেশ থেকে সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে না।

দিনের শুরুতেই ধীরে ধীরে চাঁদ অবস্থান নিবে পৃথিবী ও সূর্যের মাঝামাঝি। যুক্তরাষ্ট্রের পশ্চিম উপকূলীয় রাজ্য অরিগনের ভূমি থেকে গ্রহণের শুরুর দৃশ্য দেখা যাবে স্থানীয় সময় সকাল সোয়া ১০টার দিকে। মাঝে ১২টি রাজ্য পেরিয়ে গ্রহণের শেষ অংশটি দেখা যাবে দেশটির পূর্ব উপকূলীয় রাজ্য সাউথ ক্যারোলিনায়।

শাস্ত্রমতে এই ৫’টি কাজ করলে ক্ষতি হতে পারেঃ

  1. শাস্ত্রমতে, গ্রহণের দিন শরীরে তেল মালিশ করলে ত্বকের সমস্যা দেখা দিতে পারে।
  2. স্বামী-স্ত্রীকে সংযম রাখতে হবে। শাস্ত্র মতে, গ্রহণের সময়ে মিলনের যে সন্তান গর্ভে আসবে, তার স্বভাব, চরিত্র ভাল হয় না।
  3. গ্রহণের সময়ে গর্ভবতী মহিলাদের বাইরে বেরনো উচিত নয়। কারণ, গ্রহণের সময় পরিবেশে ক্ষতিকারক তরঙ্গ সক্রিয় থাকে। এর ফলে গর্ভস্থ সন্তানের ক্ষতি হতে পারে।
  4. গ্রহণের আগে রান্না করা খাবার গ্রহণের পরে খাওয়া উচিত নয়। খাবার রান্না করা থাকলে গ্রহণের সময়ে তাতে তুলসি পাতা ছড়িয়ে দিন। তাহলে গ্রহণের ক্ষতিকারক প্রভাব খাবারে পড়বে না।
  5. সুস্থ মানুষদের ঘুমনো উচিত নয়। এর ফলে শরীর অসুস্থ হতে পারে। গর্ভবতী, বৃদ্ধ এবং অসুস্থরা অবশ্য এই সময়ে বিশ্রাম নিতে পারেন বা শুয়ে থাকতে পারেন।

পূর্ণ সূর্যগ্রহণের খবরে যুক্তরাষ্ট্রের ১৪টি রাজ্যের অধিবাসীদের মধ্যে শুরু হয়েছে সাজ সাজ রব। শুরু হয়েছে “এক্লিপস পার্টি”-র প্রস্তুতিও।

সেদিন প্রায় তিন মিনিট সূর্যকে ঢেকে রাখবে চাঁদ। পূর্ণ গ্রহণের এলাকায় দেখা দেবে সন্ধ্যার আবহ। দিনের বেলাতেই দেখা যাবে বৃহস্পতি ও শুক্রসহ বিভিন্ন গ্রহ। রাতের তারারাও উঁকি দিবে সে সময়।

ইলিনয় রাজ্যের জায়েন্ট সিটি স্টেট পার্কে বসে পূর্ণ সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে দুই মিনিট ৪১.৬ সেকেন্ড। ১৯৭০ সালের পর যুক্তরাষ্ট্রবাসী এমন দৃশ্য দেখার সুযোগ পাননি।

এ দিন আংশিক সূর্যগ্রহণ দেখা যাবে পশ্চিম ইউরোপ, আফ্রিকার কয়েকটি এলাকা এবং এশিয়ার উত্তর-পূর্বাঞ্চলে। তবে আগ্রহীরা এ পূর্ণ সূর্যগ্রহণটি দেখতে পাবেন নাসা টেলিভিশন এবং নাসার ওয়েবসাইটে লাইভ ভিডিও স্ট্রিমের মাধ্যমে।

নাসার ওয়েবসাইটে জানানো হয়েছে ১১টি বিমান থেকে ধারণ করা হবে সূর্যগ্রহণের দৃশ্য। এছাড়াও, আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনে থাকা নভোচারীরা পাঠাবেন গ্রহণকালে প্রকৃতির রহস্যময় রূপের ছবি। তথ্যসূত্র: নাসা

Comments are closed.